বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহিম
পরম করুণাময়ের অশেষ কৃপায় আলোকিত মানুষ গড়ার প্রত্যয়ে ২০১৫ সাল থেকে নতুন কুঁড়ি রেসিডেন্সিয়াল স্কুলের যাত্রা শুরু হয়েছে। একজন আলোকিত মানুষই গড়ে তুলতে পারে একটি আলোকিত সমাজ, জাতি তথা সমগ্র রাষ্ট্র। প্রত্যেক ধর্মেই বিদ্যা শিক্ষার প্রতি বিশেষ গুরুত্ব প্রদান করা হয়েছে। পশুপাখি সহজেই পশুপাখি, তরুলতা সহজেই তরুলতা; কিন্তু মানুষকে ‘মানুষ’ হতে হয় আপ্রাণ চেষ্টায়। মানুষকে সত্যিকার মানুষ হিসেবে গড়ে তোলার প্রধান অনুষঙ্গ শিক্ষা; আর শিক্ষা গ্রহণের প্রথম প্রাতিষ্ঠানিক ধাপ হচ্ছে বিদ্যালয়। একথা দ্ব্যর্থহীনভাবে বলা যায় যে, শিক্ষার্থী, শিক্ষক ও অভিভাবক এ ত্রিমূলের সমন্বিত প্রচেষ্টার মাধ্যমে একটি বিদ্যালয়ে শিক্ষার সুষ্ঠ পরিবেশ গড়ে তোলা সম্ভব। আজকের কোমলমতি শিশুরা যদি সঠিক শিক্ষায় শিক্ষিত হয়ে পরিবার, সমাজ তথা রাষ্ট্রের প্রতি সঠিকভাবে দায়িত্ব পালন করে তবেই তারা আলোকিত মানুষ হিসেবে গড়ে উঠবে। সম্মানিত অভিভাবকবৃন্দ এবং আমাদের অসংখ্য শুভাকাঙ্খী আন্তরিক সহযোগিতা ও মূল্যবান পরামর্শ দিয়ে আমাদের কাঙ্খীত লক্ষ্যে পৌঁছাতে সাহায্য করবেন এটাই আমাদের প্রত্যাশা। আপনাদের সহযোগিতা ও পরামর্শের সাথে আমাদের আন্তরিক চেষ্টার সমন্বয়ের মাধ্যমে আমরা আমাদের প্রত্যাশিত ফলাফল আর্জনে সক্ষম হবো ইনশাআল্লাহ্।